৬ষ্ঠ শ্রেণির অ্যাসাইনমেন্ট দ্বাদশ সপ্তাহ কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা সমাধান


প্রিয় শিক্ষার্থীরা তোমাদের  জন্য নিয়ে এলাম ১২ সপ্তাহের ৬ষ্ঠ শ্রেণির কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা এসাইনমেন্ট সমাধান। তোমরা নিশ্চয় এই কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা ষষ্ঠ শ্রেণি এসাইনমেন্ট ১২ সপ্তাহ খুজছিলে। আজকের পোস্টে তোমাদের সেই কাঙ্খিত এসাইনমেন্টটি আমরা তেমাদের সরবরাহ করবো।

কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা ষষ্ঠ শ্রেণি এসাইনমেন্ট উত্তরটি তোমরা শুধুমাত্র একটি নমুনা উত্তর হিসেবে গ্রহণ করবে। হুবুহু লিখলে কিন্তু তোমাদের শিক্ষকরা তোমাদের যথাযথ মূল্যায়ন নাও করতে পারে। 

১২ সপ্তাহের ৬ষ্ঠ শ্রেণির কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা এসাইনমেন্ট সমাধান

তোমাদের বরাবরের মত একটা কথা বলবো সেটা হলো তোমাদের অনেকে এসাইনমেন্ট প্রশ্নগুলি না পড়েই উত্তর লেখা শুরু করে। আসলে তোমাদের এসাইনমেন্ট লিখতে দেওয়া কিসের জন্য সেটা নিশ্চয় তোমরা জানো। করোনাকালীন সময়ে তোমাদের পড়ালেখা চালু রাখতে এই এসাইনমেন্ট প্রগ্রাম। তাই তোমরা তোমাদের এসাইনমেন্টগুলো করার সময় অবশ্যই নিজের মধে কিছু জ্ঞান প্রবেশ করানোর জন্য চেষ্টা করবে।

চলো তাহলে আমরা ৬ষ্ঠ শ্রেণির অ্যাসাইনমেন্ট ২০২১ কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা প্রশ্নগুলো দেখে নিই।

১২ সপ্তাহের ৬ষ্ঠ শ্রেণির অ্যাসাইনমেন্ট কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা প্রশ্ন

এসাইনমেন্ট ক্রমঃ ষষ্ঠ শ্রেণির কর্ম ও জীবনমূখী শিক্ষা  এসাইনমেন্ট ২

অধ্যায়ঃ প্রথম, কর্মেই আনন্দ।

বিষয়বস্তুঃ  পাঠ-৯: সৃজনশীলতার ধারণা
পাঠ- ১০: কাজের ক্ষেত্রে সৃজনশীলতা

নির্ধারিত কাজঃ তোমার বাড়ি ও আশেপাশের ফেলে দেওয়া বস্তু (কাগজ/খবরের কাগজ/ বোতল/বাক্স/পাতা) দিয়ে ঘর সাজানোর একটি সামগ্রী তৈরি কর। প্রস্তুত প্রনালী লিখে জমা দিতে হবে)

নির্দেশনাঃ 

  • লিখিত প্রস্তুত প্রনালী অনুযায়ী নির্ধারিত সামগ্রী তৈরি করবে।
  • আযাসাইনমেন্টে উল্লেখিত বস্তগুরো ছাড়াও আশে পাশের ফেলে দেওয়া যেকোনো বস্তু ব্যবহার করতে পারবে।
৬ষ্ঠ শ্রেণির দ্বাদশ সপ্তাহের কর্ম ও জীবনমূখী শিক্ষা এসাইনমেন্ট ২০২১
৬ষ্ঠ শ্রেণির দ্বাদশ সপ্তাহের কর্ম ও জীবনমূখী শিক্ষা এসাইনমেন্ট ২০২১

উপরের ৬ষ্ঠ শ্রেণির অ্যাসাইনমেন্ট দ্বাদশ সপ্তাহ কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা প্রশ্নগুলো কী তোমরা পড়েছো। যদি না পড়ে থাকো তাহরে আগে প্রশ্নগুলো পড়ে আস তারপর উত্তর লেখা শুরু কর।

১২ সপ্তাহের ৬ষ্ঠ শ্রেণির অ্যাসাইনমেন্ট কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা সমাধান

এসাইনমেন্ট শুরু

কর্মেই আনন্দ

ভুমিকাঃ ঘর সাজানো কম বেশি সবারি শখ। তবে অনেকে অনেক টাকা খরচ করে অনেক দামি দামি শোপিচ কিনে ঘর সাজিয়ে থাকে। আবার অনেকে নিজের হাতের তৈরি জিনিস দিয়ে ঘর সাজিয়ে থাকেন। আমারো একটি শখ হচ্ছে নিজের হাতের তৈরি জিনিস দিয়ে ঘর সাজানো। হাতের কাছে কোনো অব্যবহ্রত জিনিস পেলে আমি সেটা দিয়ে ঘর সাজানো জিনিস বানাতে দেরি করিনা। আজ আমি আমাদের বাসায় পড়ে থাকা পুরোনো কাগজ দিয়ে একটি কলমদানি বানিয়েছি। সেই কলমদানি বানানোর প্রণালীটি আজকে আমি লিখছি।

কাগজ দিয়ে কলমদানি বানানোর প্রস্তুত প্রণালীঃ

প্রয়োজনীয় উপকরণঃ

  • কাগজ
  • আঠা
  • রং
  • তুলি
  • কাচি
  • স্কেল
  • গোল গ্লাস
কার্যপ্রণালীঃ

  • প্রথমে আমি কিছু খবরের কাগজ নিয়েছি। এবং কাগজগুলোকে একটি নির্দিষ্ট মাপে কেটেছি। তারপর কাগজগুলোকে গোল করে চিকন করেছি।
  • একটি কাগজ চ্যপ্তা করে গোল গ্লাসের গায়ে চেপে ধরে আঠা দিয়ে লাগিয়ে দিয়েছি। যেন তা একটি গাড়ির চাকার মত দেখায়। তারপর সেটাকে গ্লাস থেকে ছাড়িয়ে নিয়েছি। এবং এভাবে তিনটা গোলাকার অংশ বানিয়েছি।
  • তারপর প্রত্যেকটা গোল চাকার ব্যসার্ধ স্কেল দিয়ে মেপে কয়েকটি কাগজ কেটে লাগিয়ে দিয়েছে যেন তা দেখনে সাইকেলের চাকার স্পোকের মত দেখায়।
  • চাকাগুলো তৈরি হলে কিছু কাগজ দিয়ে চাকাগুলোকে জুড়ে দিয়েছি যেন তা দেখতে একটি ভ্যন গাড়ির মত দেখায়।
  • এবার গ্লাসটিকে পুনরায় নিয়ে এর গায়ে একটি কাগজ লাগিয়ে তার উপর একটি একটি করে গোল করা কাগজ লাগিয়েছি আঠা দিয়ে। এবং গ্লাসের চারিদিকে সমান ভাবে লাগিয়েছি। গ্লাসের চারিদিকে গোল করা কাগজ লাগানো শেষ হলে গ্লাস তেকে কাগজটিকে সরিয়ে নিয়েছি।
  • এখন ভ্যনগড়িটিকে রং তুলি দিয়ে কালো রং করেছি এবং গ্লাসের মত কাগজের অংশটিকে লাল রং করেছি।
  • অতপর ভ্যন গাড়ির উপর কাগজের গোলাকার অংশটিকে আটকিয়ে দিয়েছি। এভাবে আমার শোপিচ অর্থাৎ কাগজের সুন্দর একটি কলমদানি তৈরি সম্পূর্ণ হয়েছে।
উপরের পদ্ধতিতে খুব সহজে আমি আমার কলমদানিটি তৈরি করেছি এবং আমার পড়ার টেবিলের উপর রেখে দিয়েছি। আমার ইচ্ছা এভাবে বাড়িতে থাকা অব্যবহৃত জিনিস দিয়ে আরো অনেক সুন্দর সুন্দর জিনিস তৈরি করবো।

এসাইনমেন্ট শেষ

আরো পড়ুনঃ

বি.দ্রঃউপরের তৈরির প্রণালীটি তোমরা নিচের লিংক থেকে ভিডিও দেখতে পাবে। আর তোমাদের উদেশ্যে বলতে চাই তোমরা কেউ এসাইনমেন্ট কপি করবেনা। এটা শুধুমাত্র একটি নমুনা কপি হিসেবে গ্রহণ করবে। 

https://www.youtube.com/watch?v=sXpVh28vhX8

তোমাদের উদেশ্যে আরো কিছু ভিডিও লিংক দেওয়া হলো যেন তোমরা ভিডিওগুলো দেখে উত্তরটি লিখতে পারো।

আমাদের সাথে থাকতে আমাদের ফেজবুক পেজে লাইক দিয়ে রাখো। অথবা আমাদের এসাইনমেন্ট ফেজবুক গ্রুপে যুক্ত হতে পারো। এসাইনমেন্টগুলো ভিডিও আকারে পেতে আমাদের ইউটিউব চ্যনেলটি সাবসক্রাইব কর।


আমাদের ইউটিউব লিংক
https://www.youtube.com/channel/UCea_DqYt9NegZgE5A-mdIag
ফেজবুক পেজ (সমস্যা ও সমাধান)
https://web.facebook.com/shomadhan.net
assignment all class (6-9)📝📝
https://web.facebook.com/groups/287269229272391


2 মন্তব্যসমূহ

  1. কেউ যদি কপি করে ফেলে তাহলে তো আপনারা জানবেন না।এইখানে দেওয়ার কী দরকার🙄

    উত্তরমুছুন
  2. এইখানে না দিলে তো হয় তাহলে কেউ কপি করবে না

    উত্তরমুছুন

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

নবীনতর পূর্বতন